মরণফাঁদ NH2! মহেশ্বর পুরের পর আবারও জাতীয় সড়কে মৃত্যু সিভিকের! আটক ঘাতক গাড়ি, শোকের ছায়া পুলিশ মহলে

নিজস্ব সংবাদদাতা: মহেশ্বর পুরের পর এবার ডানকুনি আবারও ২নং জাতীয় সড়কে পথ দুর্ঘটনায় মৃত্যু হল এক সিভিক ভলান্টিয়ারের। পুলিশ সূত্রে খবর, আজ নিজ ডানকুনি মোড়ে মর্নিং ডিউটি করছিল জাঙ্গিপাড়ার সিভিক ভলান্টিয়ার সম্রাট সাহা ( বয়স ৩২) ।

মৃত সম্রাট সাহা, বয়স ৩২ 

পুলিশ সূত্রের খবর, এদিন সকাল ৭টা নাগাদ জাতীয় সড়কের মাঝখানে ডিউটি করার সময় হঠাৎই টোলপ্লাজার দিক থেকে একটি বুলেরো পিকাপ গাড়ি সম্রাটকে ধাক্কা মেরে বেরিয়ে যায়। খবর পেয়ে ডানকুনি থানার পুলিশ এসে আহত সম্রাটকে উদ্ধার করে স্থানীয় বেসরকারি নার্সিংহোমে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করে। খবর পেয়ে বেসরকারী নার্সিংহোমে দেখতে আসেন ডানকুনি থানার ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক তাপস সিংহ, চন্ডিতলা থানার ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক সুদীপ্ত সাধুকা, জাঙ্গিপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক প্রশান্ত ঘোষ সহ চন্দননগর পুলিশ কমিশনারেট ও হুগলি গ্রামীণ পুলিশ আধিকারিকরা। 

বেসরকারি নার্সিংহোমের বাইরে অপেক্ষারত পুলিশ আধিকারিকরা

প্রসঙ্গত, বেশকিছু দিন আগে জাতীয় সড়কের মহেশ্বর পুরে
পথ দুর্ঘটনায় প্রাণ গিয়েছিল ভাস্কর সাঁতরা নামে দাদপুর থানার এক সিভিক ভলান্টিয়ারের। সেই রেস কাটতে না কাটতেই আবারও ডানকুনিতে প্রাণ গেল সিভিকের। সম্রাটের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, বাড়িতে বাবা-মা, স্ত্রী ও প্রায় ৯ বছরের একটি সন্তান রয়েছে। এই অবস্থায় যদি সম্রাটের স্ত্রীকে সরকারি কোনও কাজের ব্যবস্থা করা যায় তাহলে অনেকটাই উপকৃত হবে সম্রাটের পরিবার দাবি স্থানীয়দের। 

জীবনের ঝুঁকি নিয়ে জাতীয় সড়কের মাঝে ডিউটিরত ট্রাফিক 

এভাবেই এই বর্ষায় জীবনের ঝুঁকি নিয়ে ডিউটি করতে হয়, ডানকুনি পুরসভার ট্রাফিক ভলান্টিয়ার, সিভিক ভলান্টিয়ার, THG সহ পুলিশ কর্মীদের। গোটা ঘটনায় শোকের ছায়া সিভিক ও পুলিশ মহলে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ