সিঁথির ব্যবসায়ীকে অপহরণ করে কয়েক লক্ষ টাকা আদায়ের চেষ্টা! মুর্শিদাবাদ থেকে গ্রেপ্তার ৮

 কলকাতার (Kolkata) ব্যবসায়ী অপহরণ কাণ্ডের কিনারা। মুর্শিদাবাদ থেকে ৮ জনকে গ্রেপ্তার করল পুলিশ। দুটি গাড়ি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। ঘটনার সঙ্গে আর কারও যোগ ছিল কি না, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, সিঁথি থানা এলাকার বাসিন্দা সিদ্ধার্থ বন্দ্যোপাধ্যায়। ২ ডিসেম্বর আচমকা উধাও হয়ে যান ওই ব্যক্তি। দীর্ঘক্ষণ পেরিয়ে গেলেও বাড়ি ফেরেননি তিনি। ফোন করেও তাঁর সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেননি পরিবারের সদস্যরা। একাধিক জায়গায় খোঁজখবর করলেও লাভ হয়নি। কিছুক্ষণ পরই অচেনা নম্বর থেকে ফোন যায় ওই ব্যবসায়ীর বাড়িতে। ১০ লক্ষ টাকা দাবি করা হয় বলে খবর।

এরপরই পুলিশের দ্বারস্থ হন ব্যবসায়ীর পরিবারের সদস্যরা। সঙ্গে সঙ্গে তদন্ত শুরু করে পুলিশ। মোবাইলের লোকেশন ট্র্যাক করে মুর্শিদাবাদ পৌঁছয় তদন্তকারীরা। সেখান থেকেই উদ্ধার করা হয় সিদ্ধার্থকে। গ্রেপ্তার করা হয়েছে ৮ জনকে। জানা গিয়েছে, ২ ডিসেম্বর জোর করে গাড়িতে তুলে সোজা ওই ব্যবসায়ীকে নিয়ে যায় বেলডাঙা।

কিন্তু কী কারণে অপহরণ কাণ্ড? একটি প্লেসমেন্ট এজেন্সি চালাতেন সিদ্ধার্থ বন্দ্যোপাধ্যায়। চাকরি দেওয়ার নাম করে বহু মানুষের থেকে টাকা নিয়েছেন। সূত্রের খবর, টাকা বা চাকরি কোনওটাই ফেরত পাচ্ছিলেন না চাকরিপ্রার্থীরা। সেই ক্ষোভেই অপহরণ করা হয় সিদ্ধার্থকে। উদ্দেশ্য ছিল, নিজেদের টাকা উদ্ধার করা। পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ৮ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অপহরণের নেপথ্যে আর কেউ রয়েছে কি না, তা জানার চেষ্টা করা হচ্ছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ