খাস কলকাতায় আন্তর্জাতিক মাদক পাচারচক্রের হদিশ, বিপুল মাদক-সহ গ্রেপ্তার ২

গোবিন্দ রায়: নানা রকমের মাদক-সহ ট্যাংরা থেকে কলকাতা পুলিশের এসটিএফের (STF) হাতে গ্রেপ্তার দুই ব্যক্তি। ধৃত ২ জনের একজন বনগাঁর বাসিন্দা, অপরজন রাজস্থানের। এমনই খবর পুলিশ সূত্রে। এদের বিরুদ্ধে NDPS অর্থাৎ মাদক বিরোধী আইনের একাধিক ধারায় মামলা দায়ের হয়েছে। দু’জনকে শুক্রবার আদালতে পেশ করা হবে।

উদ্ধার হওয়া নিষিদ্ধ মাদক।

ট্যাংরার (Tangra) ক্যানাল সাউথ রোডে মাদকচক্রের আনাগোনা বাড়ছে, প্রচুর জালনোট জমা হচ্ছে – এসটিএফ মারফত গোপন সূত্রে এই খবর পেয়েছিলেন গোয়েন্দারা। তার ভিত্তিতেই বৃহস্পতিবার অভিযান চালান তদন্তকারীরা। নেতৃত্বে ছিল ট্যাংরা থানার পুলিশ। গোপন ডেরায় হানা দিয়ে উদ্ধার হয় প্রচুর নিষিদ্ধ মাদক। ১.০৪৩ কেজি অ্যাম্ফিটেরামাইন, ১.০৪৫ কেজি মিথাকালোন এবং ১৬৪ গ্রাম অজানা একধরনের মাদকের (Drugs) পাশাপাশি দুই ব্যবসায়ীকেও গ্রেপ্তার করেন তদন্তকারীরা। মাদক সামগ্রী পরীক্ষানিরীক্ষা করে এসটিএফের প্রাথমিক অনুমান, আন্তর্জাতিক কালো বাজারে এসব মাদকের মোট দাম ১০ কোটিরও বেশি।

ধৃতদের পরিচয় জানিয়েছেন তদন্তকারীরা। এসটিএফ সূত্রে খবর, ধৃতদের একজনের নাম আমজাদ খান। বছর ছত্রিশের আমজাদ রাজস্থানের (Rajasthan) ঝালওয়ারের বাসিন্দা। অপরজন পীযূষ মণ্ডল ওরফে নিধুর বাড়ি পশ্চিমবঙ্গের বনগাঁয় (Bongaon)। এরা দু’জন মিলে কলকাতায় বসেই নিষিদ্ধ মাদকের রমরমা ব্যবসা চালাচ্ছিল বলে জানতে পেরেছেন তদন্তকারীরা। বৃহস্পতিবার রাত প্রায় ১০টা নাগাদ তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। NDPS আইনের অন্তত তিনটি ধারায় তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয়েছে। আজ আদালতে পেশ করে নিজেদের হেফাজতে নেওয়ার আবেদন জানাতে চলেছে এসটিএফ। ট্যাংরা এলাকায় এত বড় মাদকচক্রের হদিশ মেলায় এলাকায় পুলিশি নজরদারি আরও বেড়েছে| 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ