হাওড়ার হোমে শিশুদের যৌন হেনস্তার অভিযোগ, গ্রেপ্তার প্রাক্তন ডেপুটি মেয়রের ছেলে

অরিজিৎ গুপ্ত, হাওড়া: হাওড়া (Howrah) হোমে দত্তকের নামে শিশু বিক্রি ও যৌন হেনস্তার ঘটনায় এবার পুলিশের জালে হাওড়ার প্রাক্তন ডেপুটি মেয়রের ছেলে। সোমবার রাতে মালিপাঁচঘড়া এবং হাওড়া মহিলা থানার পুলিশ যৌথ ভাবে অভিযান চালিয়ে গ্রেপ্তার করে সুমিত অধিকারীকে। মঙ্গলবার তাকে আদালতে তোলা হয়েছে।

স্থানীয় সূ্ত্রে জানা গিয়েছে, হাওড়ার সালকিয়ার ওই বেসরকারি হোমে একেবারে সদ্যোজাত শিশুরাও থাকত। এই হোম থেকে নিঃসন্তান দম্পতিরা শর্তসাপেক্ষে শিশুদের দত্তক নিতে পারতেন। অনলাইনেও দত্তকের প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতেন অনেকে। অভিযোগ, সেই সুযোগকে হাতিয়ার করে শিশুবিক্রির জাল বিছিয়েছিল বেশ কয়েকজন। তারা শিশুদের দত্তক দেওয়ার নাম করে বিক্রি করে দিত। কোনও কোনও শিশুর উপর যৌন নির্যাতন চলত বলেও অভিযোগ ওঠে।

একাধিক অভিযোগ পেয়ে তদন্ত শুরু করে হাওড়া সিটি পুলিশের তরফে তদন্ত শুরু হয়। একটি বিশেষ দলও গঠন করা হয়। হাওড়া সিটি পুলিশের কমিশনার সি সুধাকরের নেতৃত্বে বিশাল পুলিশবাহিনী কিছুদিন আগে ওই হোমে অভিযান চালায়। পুলিশকর্মীরা আচমকাই হোমে হানা দেন। কিছু বুঝে ওঠার আগেই হোমে থাকা প্রত্যেক শিশুকে অন্যত্র সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়। সেই সময়ই গ্রেপ্তার ৯ জনকে। ধৃতদের মধ্যে একজন সরকারি আধিকারিক ছিলেন। এছাড়াও ছিলেন হাওড়ার প্রাক্তন ডেপুটি মেয়র মিনতি অধিকারীর পুত্রবধূ গীতশ্রী।

এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে তীব্র উত্তেজনা ছড়িয়েছিল এলাকায়। অভিযুক্তদের শাস্তির আশ্বাস দিয়েছিলেন মন্ত্রী শশী পাঁজা। সেই ঘটনায় গ্রেপ্তার এবার হাওড়ার প্রাক্তন ডেপুটি মেয়রের ছেলে সুমিত অধিকারী।



একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ